হাত-পা খুব ঘামে? জেনে নিন এই সমস্যার সহজ ৪টি সমাধান

বিস্তারিত দেখতে নিচের ছবিতে ক্লিক করুন
Loading...

অনেকের হাত-পা ঘেমে ভিজে যায়। আর এই হাত ঘামার কারণে হ্যান্ডশ্যাক করতে বিব্রতবোধ করে থাকেন অনেকেই। এই ধরণের সমস্যায় শুধু আপনি একা নন, অনেক মানুষই ভুগে থাকেন এই সমস্যায়। সাধারণত অতিরিক্ত স্ট্রেস, হরমোনাল চেঞ্জ, নার্ভাসনেস ইত্যাদি বিভিন্ন কারণে হাত-পা ঘেমে যেতে পারে। এই বিব্রতকর অবস্থা থেকে মুক্তি পেতে পারেন ঘরোয়া কিছু উপায়ে। এমন কিছু উপায় নিয়ে আজকের এই ফিচার।

১। অ্যাপেল সাইডার ভিনেগার
সমপরিমাণ অ্যাপেল সাইডার ভিনেগার এবং পানি মিশিয়ে নিন। এরসাথে গোলাপ জল মেশান। এবার এটি দিয়ে দিনে দুই তিনবার হাত মুছে ফেলুন। এছাড়া হাত-পা কুসুম গরম পানি দিয়ে ধুয়ে ফেলুন তারপর একটি তুলোর বলে অ্যাপেল সাইডার ভিনেগার ভিজিয়ে হাত-পায়ে ব্যবহার করুন। এরপর বেবি পাউডার হাতে ছিটিয়ে দিন। এছাড়া এক-দুই চা চামচ অ্যাপেল সাইডার ভিনেগার, মধু এবং কুসুম গরম পানি মিশিয়ে দিনে দুইবার পান করুন।

২। বেকিং সোডা
কুসুম গরম পানিতে তিন টেবিল চামচ বেকিং সোডা মিশিয়ে নিন। এই মিশ্রণে হাত ভিজিয়ে রাখুন আধা ঘন্টা। এরপর শুকনো কাপড় দিয়ে হাত মুছে ফেলুন। এই মিশ্রণে পাও ভিজিয়ে রাখতে পারেন। কিছুদিনের মধ্যে হাত-পা ঘেমে যাওয়া কমে যাবে।

৩। লেবুর রস
এক চা চামচ বেকিং সোডা এবং লেবুর রস একসাথে মিশিয়ে পেস্ট তৈরি করুন। এই পেস্টটি হাত-পায়ে ব্যবহার করুন। ১০ মিনিট পর শুকিয়ে গেলে পানি দিয়ে ধুয়ে ফেলুন। এটি প্রতিদিন ব্যবহার করুন। লেবুর রস ব্যাকটেরিয়া দূর করে হাতে একটি সুন্দর সুভাস নিয়ে আসে। এছাড়া এক চা চামচ লেবুর রস এক কাপ পানিতে মিশিয়ে নিন। এই মিশ্রণে একটি কাপড় ভিজিয়ে নিন। সেই ভেজা কাপড় দিয়ে হাত, পা মুছুন। আপনি এই মিশ্রণ দিয়ে গোসলও করতে পারেন।

৪। টমেটোর রস
টমেটো পাতলা করে কেটে নিন। এটি হাতে ঘষুন ১০-১৫ মিনিট। এছাড়া টমেটোর রস ঘাম হওয়া স্থানে লাগিয়ে রাখুন ১০-১৫ মিনিট। এরপর কুসুম গরম পানি দিয়ে হাত ধুয়ে ফেলুন। এটি দিনে একবার ব্যবহার করুন।

২। বেকিং সোডা
কুসুম গরম পানিতে তিন টেবিল চামচ বেকিং সোডা মিশিয়ে নিন। এই মিশ্রণে হাত ভিজিয়ে রাখুন আধা ঘন্টা। এরপর শুকনো কাপড় দিয়ে হাত মুছে ফেলুন। এই মিশ্রণে পাও ভিজিয়ে রাখতে পারেন। কিছুদিনের মধ্যে হাত-পা ঘেমে যাওয়া কমে যাবে।

৩। লেবুর রস
এক চা চামচ বেকিং সোডা এবং লেবুর রস একসাথে মিশিয়ে পেস্ট তৈরি করুন। এই পেস্টটি হাত-পায়ে ব্যবহার করুন। ১০ মিনিট পর শুকিয়ে গেলে পানি দিয়ে ধুয়ে ফেলুন। এটি প্রতিদিন ব্যবহার করুন। লেবুর রস ব্যাকটেরিয়া দূর করে হাতে একটি সুন্দর সুভাস নিয়ে আসে। এছাড়া এক চা চামচ লেবুর রস এক কাপ পানিতে মিশিয়ে নিন। এই মিশ্রণে একটি কাপড় ভিজিয়ে নিন। সেই ভেজা কাপড় দিয়ে হাত, পা মুছুন। আপনি এই মিশ্রণ দিয়ে গোসলও করতে পারেন।

৪। টমেটোর রস
টমেটো পাতলা করে কেটে নিন। এটি হাতে ঘষুন ১০-১৫ মিনিট। এছাড়া টমেটোর রস ঘাম হওয়া স্থানে লাগিয়ে রাখুন ১০-১৫ মিনিট। এরপর কুসুম গরম পানি দিয়ে হাত ধুয়ে ফেলুন। এটি দিনে একবার ব্যবহার করুন।

২। বেকিং সোডা
কুসুম গরম পানিতে তিন টেবিল চামচ বেকিং সোডা মিশিয়ে নিন। এই মিশ্রণে হাত ভিজিয়ে রাখুন আধা ঘন্টা। এরপর শুকনো কাপড় দিয়ে হাত মুছে ফেলুন। এই মিশ্রণে পাও ভিজিয়ে রাখতে পারেন। কিছুদিনের মধ্যে হাত-পা ঘেমে যাওয়া কমে যাবে।

৩। লেবুর রস
এক চা চামচ বেকিং সোডা এবং লেবুর রস একসাথে মিশিয়ে পেস্ট তৈরি করুন। এই পেস্টটি হাত-পায়ে ব্যবহার করুন। ১০ মিনিট পর শুকিয়ে গেলে পানি দিয়ে ধুয়ে ফেলুন। এটি প্রতিদিন ব্যবহার করুন। লেবুর রস ব্যাকটেরিয়া দূর করে হাতে একটি সুন্দর সুভাস নিয়ে আসে। এছাড়া এক চা চামচ লেবুর রস এক কাপ পানিতে মিশিয়ে নিন। এই মিশ্রণে একটি কাপড় ভিজিয়ে নিন। সেই ভেজা কাপড় দিয়ে হাত, পা মুছুন। আপনি এই মিশ্রণ দিয়ে গোসলও করতে পারেন।

৪। টমেটোর রস
টমেটো পাতলা করে কেটে নিন। এটি হাতে ঘষুন ১০-১৫ মিনিট। এছাড়া টমেটোর রস ঘাম হওয়া স্থানে লাগিয়ে রাখুন ১০-১৫ মিনিট। এরপর কুসুম গরম পানি দিয়ে হাত ধুয়ে ফেলুন। এটি দিনে একবার ব্যবহার করুন।

বিস্তারিত দেখতে নিচের ছবিতে ক্লিক করুন
x