Loading...

প্রতিযোগিতার এ বাজারে উচ্চশিক্ষা নিতে আগ্রহী নন এমন ছাত্র খুঁজে পাওয়া দুষ্কর। একটি নির্দিষ্ট সময় পর বিদেশে উচ্চশিক্ষা নেয়ার স্বপ্নও থাকে অনেকেরই। অনেকেই হয়তো বিশ্ববিদ্যালয়ে অনার্স শেষ করে এবার মাস্টার্সের কথা ভাবছেন।

আর এর জন্য বাংলাদেশ নয় এক বছর মেয়াদী মাস্টার্সের জন্য বেছে নিতে পারেন ইংল্যান্ডকে। কারণ বিনা পয়সায় পড়াশোনার জন্য স্কলারশিপ দিচ্ছে যুক্তরাজ্য সরকার। আগ্রহী শিক্ষার্থী তার পছন্দ অনুযায়ী যেকোন বিষয়েই উচ্চশিক্ষা গ্রহণ করতে পারবে।

যোগ্যতা: মাস্টার্স কোর্সে আবেদন করার জন্য প্রয়োজনীয় সকল যোগ্যতা। এছাড়া শিক্ষাজীবনের কোন পর্যায়ে তৃতীয় বিভাগ গ্রহণযোগ্য নয়।

স্কলারশিপের বর্ণনা: ফরেন এন্ড কমনওয়েলথ অফিস (এফসিও) এর অর্থায়নে এ স্কলারশীপ প্রদান করা হয়। স্কলারশীপ ও ফেলোশিফ, বৃত্তিপ্রাপ্ত শিক্ষার্থী এ দুই ধরনের সুবিধাই পাবেন।

স্কলারশিপের বিষয়: শিক্ষার্থী তার পছন্দমত বিষয়ে স্কলারশিপ নিতে পারবেন।

যা লাগবে:
১. লেটার ফরম্যাটে ইংরেজিতে লিখিত দুইটি রেফারেন্স
২. ভ্যালিড পাসপোর্ট/ জাতীয় পরিচয়পত্র
৩. ইউনিভার্সিটি ট্রান্সক্রিপ্ট (আন্ডারগ্রাজুয়েট, পোস্টগ্রাজুয়েট)
৪. প্রার্থী যেসব বিষয়ে মাস্টার্স করতে চায় এমন তিনটি বিষয়ের নাম।

এগুলো অনলাইন আবেদন করার সময় পিডিএফ ফরম্যাটে আপলোড করতে হবে। আর ফাইলের সাইজ ৫ এমবিএর বেশি হওয়া চলবে না।

আবেদনের নিয়ম: ইউকে গভর্মেন্ট স্কলারশিপের জন্য অনলাইনে আবেদন করতে হবে।

আবেদন করতে ক্লিক করুন: http://www.chevening.org/apply

বিস্তারিত দেখতে নিচের ছবিতে ক্লিক করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published.